১৭ মার্চ বাংলাদেশে আসছেন না : নরেন্দ্র মোদি

অনলাইন ডেস্ক : জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে ১৭ মার্চ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বাংলাদেশে আসছেন না।

রোববার (৮ মার্চ) রাতে সেগুনবাগিচায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে প্রেস ব্রিফিংয়ের সময় ‘জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটি’র প্রধান সমন্বয়ক ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী এই তথ্য জানিয়েছেন।

কমিটির প্রধান সমন্বয়ক বলেন, ‘অন্যান্য দেশের পাশাপাশি বাংলাদেশে করোনায় আক্রান্ত তিনজনকে শনাক্ত করার পর অনুষ্ঠানসূচিতে পরিবর্তন আনা হয়েছে।

এ কারণে ১৭ মার্চ বঙ্গবন্ধুর জন্মদিনে জাতীয় প্যারেড গ্রাউন্ডের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান আপাতত স্থগিত করা হয়েছে।’

প্রসঙ্গত, ভারতে ‘মুসলিম নির্যাতনের’ অভিযোগ তুলে মুজিববর্ষে নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশে আগমনের প্রতিবাদ জানিয়ে আসছিল বিএনপি ও ইসলামি দলগুলো।

এসব দলের শীর্ষনেতারা দিল্লির দাঙ্গার জন্য মোদিকে দোষারোপ করে তার আগমণ প্রতিহতের হুমকি দিয়ে আসছিলেন। এছাড়া করোনাভাইরাসের প্রকোপে বিশ্বব্যাপী ভ্রমণ সীমিত করার প্রসঙ্গ তুলে, সরকারবিরোধী দলগুলোর নেতারা বলছেন, এই সময়ে ভারতে এই ভাইরাসের আক্রমণ শুরু হয়েছে। দেশটিতে করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে। এমন পরিস্থিতিতে করোনা সংক্রমণ থেকে দেশকে মুক্ত রাখতেও মোদির সফর প্রতিহত করার হুমকি দিয়েছেন বিএনপি ও ইসলামি দলগুলো।

এদিকে, রোববার (৮ মার্চ) দুপুরে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইইডিসিআর)-এ আয়োজিত নিয়মিত সংবাদ সম্মেলনে সংস্থাটির পরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা বলেন, ‘দেশে তিন জন করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে। আরও দুই জনকে কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে।’

ঠিক এমন পরিস্থিতিতেই এদিন সন্ধ্যায় গণভবনে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় কমিটির সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে এই উপলক্ষে গঠিত জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

বৈঠক প্রসঙ্গে কামাল আব্দুল নাসের চৌধুরী বলেন, ‘সন্ধ্যায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক হয়েছে। বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে, বতর্মান পরিস্থিতি বিবেচনায় নিয়ে স্বাস্থ্যঝুঁকির বিষয় চিন্তা করেই বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন ছোট পরিসরে করা যাবে। আর প্যারেড গ্রাউন্ডের অনুষ্ঠান স্থগিত থাকায় আপাতত কোনও বিদেশিও আসবেন না।’

নরেন্দ্র মোদিসহ যেসব বিদেশি অতিথিকে মুজিববর্ষের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল, তারা আসবেন কি না, জানতে চাইলে কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী বলেন, ‘যেহেতু মূল অনুষ্ঠান এখন হচ্ছে না, সেহেতু তারা এখন আসবেন না।’ পরবর্তী সময়ে অনুষ্ঠানসূচি ঘোষণা করা হলে তাদেরও ওই সময়ে আমন্ত্রণ জানানো হবে বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

বৈঠক শেষে জানানো হয়, ১৭ মার্চ জাতীয় প্যারেড গ্রাউন্ডের মুজিববর্ষের উদ্বোধন অনুষ্ঠান হচ্ছে না। দেশে তিন জন করোনা আক্রান্তকে শনাক্ত করার পর প্রধানমন্ত্রী এমন নির্দেশ দিয়েছেন বলেও জানিয়েছেন বাস্তবায়ন কমিটির প্রধান সমন্বয়ক।

পোষ্টটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *